-->

কোয়ালকম ২ এস-ব্যাটারি, ১০০ ওয়াট+ চার্জিং সমর্থন সহ কুইক চার্জ ৫ ঘোষণা করল

quick-charge-5-explained

যদি বলা হয় যে স্মার্টফোনের কোন বিষয়টি আপনি পারলে উন্নতি করতে চাইবেন তাহলে বেশিরভাগই বলবেন ক্যামেরা বা পারফরম্যান্স। যদি কেউ বলে থাকেন ফোনের ব্যাটারি চার্জিং স্পিড বাড়ানোর কথা তাহলে হয়তো আপনি অনেক পুরনো ফোন ইউজ করছেন। 

কেননা স্মার্টফোনের ব্যাটারি চার্জিং এখন এমন পর্যায় এসেছে যে মাত্র কিছুক্ষন সময় দিলেই সম্পূর্ণ চার্জ হয়ে যায়।

পূর্বের বছরগুলোতে আমরা ১৮ ওয়াট এর ফাস্ট চার্জিং উপভোগ করেছি কিন্তু এখন আমরা আরো বেশি দ্রুত চার্জ করার প্রযুক্তির জন্য বসে আছি। 

অপো এবং রিয়ালমি ইতিমধ্যে তাদের ৬৫ ওয়াট এর সুপার ভুক চার্জিং অফার করছে এবং কাজ করে যাচ্ছে ১২৫ ওয়াট এর চার্জিং স্পিড সক্ষম করার জন্য। এমনকি শাওমি এবং ভিভোও তাদের ১০০ ওয়াট+ চার্জিং টেক প্রদর্শন করেছে। 

তবে এই সব অস্থির ফাস্ট চার্জিং টেকনোলজি কেবল যে কোম্পানি বানায় তাদের হাতেই থাকে কিন্তু আমেরিকার বিখ্যাত মোবাইল চিপ নির্মাতা কুয়ালকম বানিজ্যিকভাবে প্রস্তুত কুইক চার্জ ৫ বের করে গতকাল।  

কুয়ালকম কুইক চার্জ ৫ হলো বিশ্বের প্রথম বানিজ্যিকভাবে এভেইলেবল ১০০ ওয়াট+ ফাস্ট চার্জিং টেকনোলজি। এটা কুইক চার্জ ৪.০/৪+ এর উত্তরসূরি এবং চার্জিং গতি ও সময় বিভাগে প্রচুর লাভ নিয়ে আসে। 

কুয়ালকম দাবি করছে এই কুইক চার্জ ৫ একটা ৪৫০০ মিলি ব্যাটারিকে মাত্র ৫ মিনিটের মধ্যে ৫০% চার্জ করে দিবে। হ্যা, মাত্র ৫ মিনিটে ৫০% চার্জ এবং ১৫ মিনিট সময়ে ১০০%। এই রকম চার্জিং স্পিড অপোর ১২৫ ওয়াট ফাস্ট চার্জিং এর মধ্যেও দেখেছি আমরা। 

quick-charge-5-explained

এখনকার বেশিরভাগ ফোনে যে কুইক চার্জ ৪ টেক আছে সেটা থেকে কুইক চার্জ ৫ চারগুণ বেশি ফাস্ট। কুইক চার্জ ৫ এর পূর্বসূরীর থেকে ৭০ শতাংশ এফিসিয়েন্টও এবং প্রথম প্রজন্মের কুইক চার্জ টেকনোলজি থেকে ১০ গুন বেশি পাওয়ার ডেলিভার করতে সক্ষম।

কুইক চার্জ ৫ কিভাবে কাজ করে ?

এই ফাস্ট চার্জিং টেক আনা সম্ভব হয়েছে ২এস ব্যাটারি এবং ২০ ভোল্টের পাওয়ার ডেলিভারির জন্য। তার মানে আগামী মাসগুলোতে যে ফোন বের হবে সেগুলোতে শীঘ্রই দুইটা ব্যাটারি প্যাক থাকবে যেগুলো সিরিজ কানেকশনে হবে। 

যেটা এনেবল করে দিবে দ্বিগুণ ভোল্টেজ এবং দ্বিগুণ চার্জিং স্পিড। 

যদিও কুইক চার্জ ৫ এর ভোল্টেজ অনেক বেশি কুয়ালকম বলছে এটা কুইক চার্জ ৪ থেকে ১০ ডিগ্রি সেলিয়াস বেশি ঠান্ডা থাকবে। তাছাড়া এই লেটেস্ট কুইক চার্জ টেকনোলজিতে আলাদা করে ভোল্টেজ, কারেন্ট এবং তাপমাত্রার সুরক্ষা প্রদান করা থাকবে।  

কুইক চার্জ ৫ কে আরো ব্যাকআপ করছে চিপ নির্মাতার ব্যাটারি সেভার এবং স্মার্ট আইডেন্টি ফিকেশন অফ অ্যাডাপটার ক্যাপাবিলিটিজ যা ফোনের ব্যাটারি দীর্ঘমেয়াদী করতে কাজে দিবে।  

কুইক চার্জ ৫ এর পূর্বসূরী যেমন: কুইক চার্জ ৪, ৪+, ৩, ২ এর সাথে মানানসই।

কুইক চার্জ ৫ স্মার্টফোন কখন মার্কেটে আসবে ?

যারা কুয়ালকম স্ন্যাপড্রাগন ৮৬৫ বা ৮৬৫+ চিপ সম্পন্ন কোনো ফোন ইউজ করছেন তারা জেনে খুশি হবেন যে ওই চিপগুলো ইতিমধ্যেই কুইক চার্জ ৫ সাপোর্ট করে এবং কুয়ালকম আগামীতে যেসব প্রিমিয়াম চিপসেট আনবে সেগুলোতে এই কুইক চার্জ ৫ থাকবে। 

এখনকার সময়ে চিপ নির্মাতা এই ফাস্ট চার্জিং টেকনোলজি কেবল টেস্ট করছে এবং আমরা ২০২০ সালের তৃতীয় কুয়ারটারের ফোনগুলোয় এই চার্জিং টেক দেখতে পারি।

Post a Comment

আমরা স্প্যাম ঘৃণা করি!

অপেক্ষাকৃত নতুন পুরনো